সাম্প্রতিক বিষয়

প্রখ্যাত ইসলামি গবেষক এরেস্ট ?! সত্যতা কতটুকু ?!

সম্প্রতি ধর্মীয় বিরোধের উষ্ণতম সময়ে মুসলিমদের জ্ঞানের অন্যতম ভান্ডার আরব এর ব্যাপারে নানা খবর অনলাইন পোর্টালে প্রচারিত হচ্ছে যার মধ্যে ভুল ও মিথ্যা মিশ্রিত। যেমন ইসলামের কোন বিষয়ে সঠিক সিদ্ধান্ত পেতে মুসলিমদের নির্ভরযোগ্য প্রশ্নোত্তর ওয়েবসাইট ইসলাম কিউ এ (www.islamqa.info) এর প্রতিষ্ঠাতা মুহাম্মদ সালেহ আল মুনাজ্জিদ এর ব্যাপারে প্রচারিত হচ্ছে যে সৌদি আরব শাসক দ্বারা তিনি গ্রেফতার হয়েছেন। এখন পর্যন্ত এটির ব্যাপারে নির্ভরযোগ্য কোন খবর মাধ্যম কোন তথ্য প্রদান করেনি। ফলে এই বিষয়টিকে আপাতদৃষ্টিতে গুজব হিসেবেই আখ্যায়িত করা যায়। কিছু ফেসবুক পেইজ ও টুইটার একাউন্ট থেকে এমনটি বলা হচ্ছে যে সলেহ আল মুনাজ্জিদ গ্রেফতার হয়েছেন কিন্তু উক্ত পেইজ বা টুইটার প্রমান বা নিশ্চিত করার জন্য বড় খবর মাধ্যমকে ব্যাবহার করতে সক্ষম হয়নি।

তবে যদি এই ইসলামি ব্যক্তি গ্রেফতার হয়েও থাকেন তা মুসলিমদের জন্য শুরুতেই কোন চিন্তার বিষয় হতে পারেনা। এর কারন নিম্নে এক ফেসবুক ব্যবহারকারীর মন্ত্যব্যের কিছু অংশ হুবহু তুলে ধরার মাধ্যমে ব্যক্ত করা হলঃ

“”শাইখ মুনাজ্জিদ হাফি: আমাদের মাথার তাজ আলহামদুলিল্লাহ। একমাত্র আল্লাহর সন্তুষ্টির জন্য ই শাইখ কে এত ভালবাসি। শাইখের islamqa.com থেকে উপকৃত হয় নি এমন সালাফি ছেলে পাওয়াই মুশকিল! যদি শাইখ কে ভবিষ্যতে গ্রেফতারও করা হয় তাতেও অবাক হওয়ার কিছুই নাই!কারন আরবে কাউকে গ্রেফতার করলেই তিনি অপরাধী অথবা তার মানহানি হয় ব্যাপারটা এমন নয়, বরং ইনভেস্টিগেশনের খাতিরে সরকার চাইলেই যে কাউকে গ্রেফতার করতে পারে!
প্রমাণিত হলে শাস্তি আর না হলে মুক্তি।
এর আগেও সালাফি দ্বায়ী শাইখ তাউসিফুর রাহমান রাশিদি হাফি: শাইখ তলেবুর রাহমান হাফি: কে গ্রেফতার করা হয়েছিল। অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়াতে স্বসম্মানে ছেড়ে দিয়েছে এবং উনারা দাওয়া সেন্টারে কাজ ও করছেন!!এমন কি শাইখ মুহাম্মদ বিন রাবি আল মাদখালি কে একবার গ্রেফতার করা হয়েছিল।ইনারা গ্রেফতারের আগে & পরেও সৌদি সরকারের প্রশংসা করেছে! সুতরাং উনাকে গ্রেফতার করলেও পেরেশানির কিছুই নাই!””

মানবতার ধর্ম ইসলামের অনুসারীরা তাদের সর্বশেষ নবী রাসূল মোহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর কাছে ধর্মের নানা খুটি নাটি বিষয়ে জিজ্ঞাসা করে আসছে সেই ইসলামের শুরু থেকেই। জানার মানুসিকতাই মুসলিমদের(ইসলামের অনুসারী)গড়ে তুলেছে সারা বিশ্বের নিকট অন্যতম। ইসলাম ধর্ম সর্বাপেক্ষা সূক্ষ্ম এবং এ বিষয় প্রমান করে আসছে ইসলামের যুগ যুগ ধরে চলে আসা গবেষণাবিদগণ। এসব গবেষণাবিদগণ বা ইসলামি পরিভাষায় আলিম/আলেমগন ধর্মীয় বিষয়ে সিদ্ধান্ত দিলে তা ফাতওয়া হিসেবে মুসলিমদের নিকট পরিচিত।

আধুনিক কম্পিউটারের যুগে মুসলিমদের জ্ঞানের সর্বোত্তম ভান্ডার আরব থেকে ধর্মীয় এমন ফাতওয়া সারা বিশ্বকে প্রদান করে আসছে সর্বপ্রাচীন ইসলামিক ওয়েবসাইট www.islamqa.info (ইসলাম কিউ এ)

ইসলাম কিউ এ এর ব্যাপারে বিস্তারিত জানতে গুগল করতে পারেন।

মতামত দিন

Solve : *
17 − 10 =


কমেন্ট