বর্তমান বিশ্বে মুসলমানদের সংখ্যা কেন এত বাড়ছে?

দেখুন এক হাজার বছর পূর্বেও এ ভারত উপমহাদেশে ছিল একচেটিয়া হিন্দুর দেশ। এদেশের রাজা প্রজা সবাই ছিল হিন্দু। ছিটে ফোটা দুই একটা খ্রীষ্টান থাকলেও তা ধরার মতো ছিল না। সেখানে মাত্র ১ হাজার বছরের মধ্যে উপমহাদেশের ৩টি দেশে যে প্রায় ৩০ কোটিরও উপর মুসলমান এরা এলো কোত্থেকে? এরা সবাই তো এই দেশেরই লোক। এদের পূর্ব পুরুষ তো হিন্দুই ছিল। তারা কি দেখে মুসলমান হল? এবং এখনও যে প্রতি বছর নতুন নতুন মুসলমান হচ্ছে তারা কেন মুসলমান হচ্ছে? এটা ভেবে দেখা উচিৎ।
.
এই বাংলঅদেশে যেখানে ১০০০ বছরের মধ্যে শতকরা ৯০ জন মুসলমান। পাকিস্তানে এই একই সময়ের মধ্যে শতকরা প্রায় ১০০ জনই মুসলমান, গোটা উপমহাদেশের মোট জনসংখ্যা প্রায় ৩৫% মুসলমান এরা সবাই ছিল এককালে হিন্দু। এদের কাউকে ঘাড়ে তরবারি মেরে মুসলমান করা হয়েছে কি? সবাই মুসলমান হচ্ছে জ্ঞান বুদ্ধি ও বিবেকের তাড়নায়।


.
তাছাড়া দেখুন মাত্র ১৪০০ বছরের মধ্যে পৃথিবীতে এমন কোন দেশ নেই এবং মহাসমুদ্রগুলোর মধ্যে এমন কোন দ্বীপ নেই যেখানে মুসলমান নেই। আর মুসলমানের সংখ্যাক্রমেই বৃদ্ধি পাচ্ছে। এরা কি দেখে মুসলমান হলো এবং হচ্ছে? তাছাড়া অতি প্রাচীন হিন্দু ধর্ম যেখানে এক দেশ থেকে অন্য দেশে দীর্ঘ দিনেও পাড়ি জমাতে পারল না এবং কোন মহাসমুদ্র পার হতে পারল না সেখানে মাত্র ১৪০০ বছরে কি করে ইসলাম ধর্ম পৃথিবীর প্রতিটি মহাদেশে পৌঁছে গেল? এ ধর্মের সত্যতা সম্পর্কে অকাট্য যুক্তি না থাকলে কি এত সামান্য সময়ের মধ্যে এই যুক্তি বুদ্ধির চরম উৎকর্ষের যুগে ইসলাম এত প্রসার লাভ করতে পারত? সুস্থ মস্তিষ্কে নিরপেক্ষ মন নিয়ে এসব চিন্তা-ভাবনা করতে অনুরোধ করব প্রত্যেকটি মানব সন্তানকে, বিশেষ করে যারা অমুসলিম তাদেরকে গভীরভাবে চিন্তা করতে বলব তাদের নিজেদের স্বার্থেই।
.
চিন্তা করুন ভারতের কথা। আজ যেখানে হিন্দু রাজত্ব কায়েম রয়েছে সেখানে ৫০ কোটি হিন্দুদের পুরোহিত বর্তমান বিশ্বের একজন নামকরা শিক্ষিত হিন্দু ধর্মীয় নেতা ড. শিবশক্তি স্বরূপজী মহারাজ উদাসেন এই মাত্র ক’দিন পূর্বে সপরিবারে ইসলাম গ্রহণ করেন। তিনি কি দেখে এত বড় ধর্মীয় পৌরোহিত্য ছেড়ে মুসলমান হলেন? তিনি মুসলমান হয়ে বই লিখেছেন “আঁপভি ছোঁচিয়ে” অর্থাৎ “আপনিও ভেবে দেখুন।” আমি তার সুরে সুর মিলিয়ে বলছি আপনারাও ভেবে দেখুন যে, তিনি সারা জীবন ধর্ম নিয়ে পড়াশুনা করার পর কেন তাঁর পৈতৃক ধর্ম ছেড়ে মুসলমান হলেন? যে ইসলামকে ক’দিন পূর্বেও তিনি অত্যন্ত ঘৃণা করতেন। আমি এটা ভেবে দেখতে বলব ভারতে সম্মানিত প্রেসিডেন্ট ও প্রধানমন্ত্রীসহ সমস্ত নেতৃবৃন্দকে এবং দুনিয়ার প্রতিটি অমুসলিম ভাই-বোনদেরকে।
.
চিন্তা করুন, আজ থেকে ১০০ বছর পূর্বেও এ পৃথিবীতে মানুষ ছিল কিন্তু আমরা ছিলাম না। ঠিক তেমনই এখন থেকে আর ১০০ বছর পরেও এ পৃথিবীতে মানুষ থাকবে কিন্তু আমরা থাকব না। সেদিন আমরা পৃথিবীতে না থাকলেও কোথাও না কোথাও থাকব। সে হচ্ছে প্রতিফল ভোগের দেশ। সেখানে “প্রতিফল ভোগ করতেই হবে। সেদিন আফসোস করে কোনই লাভ হবে না। কাজেই এখনই ভেবে দেখার উপযুক্ত সময়। এ কারণেই ড. শিবশক্তি স্বরূপজী বলেছেন, ‘আপনিও ভেবে দেখুন’। আমিও বলি ‘আপনিও ভেবে দেখুন।’

উৎসঃ ফেসবুক

About ইউসুফ আলী

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Solve : *
13 + 27 =